246191

অর্ধেক ব্রিটিশ দম্পতি একই তোয়ালে ব্যবহারে ব্যাক্টেরিয়ায় আক্রান্ত হন

রিবাতুল ইসলাম : ব্রিটেনের ড্রেঞ্চ নামে একটি প্রতিষ্ঠানের জরিপে দেখা গেছে দেশটির অধিকাংশ দম্পতি নিজেদের মধ্যে একই তোয়ালে ব্যবহার বা বিনিময় করেন। এর ফলে তারা একে অপরের ব্যাক্টেরিয়ায় আক্রান্ত হন। দম্পতি হিসেবে নিজেদের আস্থার ওপর স্থির থাকা, ভাল মন্দ যা কিছু শেয়ার করা যায় কিন্তু একই তোয়ালে ব্যবহার কখনো ঠিক নয় বলে বলছেন চিকিৎসাবিজ্ঞানিরা।

গবেষণা দেখা গেছে দম্পতিদের টয়লেট ব্যবহারের পর মল থেকে ব্যাক্টেরিয়া পর্যন্ত তোয়ালের মাধ্যমে একে অপরের মাঝে ছড়িয়ে পড়ে। এধরনের বিরক্তিকর তথ্য পাওয়া যায় দম্পতিদের করা প্রশ্নের উত্তরে। যারা ৫ বছর ধরে একই বাথরুম ও তোয়ালে ব্যবহার করছেন তাদের মধ্যে এধরনের ব্যাক্টেরিয়া ছড়িয়ে পড়ার আশঙ্কা বেশি।
সমীক্ষায় দেখা যায় ৫৬ শতাংশ ব্রিটিশ দম্পতি একই তোয়ালে ব্যবহার করেন।

আর ৯০ শতাংশ তোয়ালেই ফায়েক্যাল ব্যাক্টেরিয়ায় পরিপূর্ণ। ১৪ শতাংশ বহন করে ই. কোলির মত ভয়াবহ ধরনের ব্যাক্টেরিয়া। তোয়ালে কৃমি, দাঁদ ও সংক্রমণ ব্যাধির ব্যাক্টেরিয়া ছড়িয়ে পড়ার মাধ্যম হিসেবে কাজ করে। এধরনের ঝুঁকি এড়াতে প্রতিদিন তোয়ালে ধৌত করা জরুরি। স্বামী-স্ত্রীর মধ্যে যতই মিল থাকুক রোগ কিংবা ব্যাক্টেরিয়া নিয়ে আপোস করা যায় না।

ব্রিটেনের স্বাস্থ্য বিভাগের পক্ষ থেকে এর ওয়েবসাইট বলছে সাধারণভাবে তোয়ালে প্রতিদিন ধৌত করলে ব্যাক্টেরিয়া ছড়িয়ে পড়ার ঝুঁকি বেশ কমে যায়। বিশেষ ক্ষেত্রে ব্যাক্টেরিয়া যদি ছড়িয়ে পড়ার সম্ভাবনা বেশি হয় তাহলে স্বাভাবিক তাপমাত্রার চেয়ে উচ্চতাপমাত্রায় তোয়ালে ধৌত করে ভাল ফল পাওয়া যাবে।

পাঠকের মতামত

Comments are closed.